You cannot copy content of this page. This is the right with takmaa only

আনলকেও অসহায় মানুষের পাশে ফের রাজপুর সোনারপুরের পরসভার পৌরমাতা পাপিয়ার খাদ্য বিতরণ

অম্বর ভট্টাচার্য, এবিপিতকমা, সোনারপুর, ১৩ই জুন ২০২০ : করোনার থাবা এখনও সেভাবে প্রভাব ফেলে নি গোটা বাংলায়। যদিও কলকাতা শহরে করোনার থাবা বেশ ভালোই প্রভাব ফেলেছে। বর্তমানে বাংলায় রোজই ৪৫০ জনের কাছাকাছি আক্রান্ত হলেও মৃত্যুর সংখ্যা অনেকটাই কম। গোটা রাজ্যে লকডাউন কার্যত সেভাবে আর নেই বললেই চলে। বর্তমানে আনলক ১ ঘোষণার পর অনেকেই রাস্তায় বেড়চ্ছে, কাজেও যাচ্ছে তবে সংখ্যাটা খুবই কম।যদি সোনারপুরের কথা বলি তবে নরেন্দ্রপুর থানা অন্তর্গত করোনায় আজ পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছেন ৩২ জন কিন্তু করোনায় মারা গেছেন মাত্র ১ জন। আবার মুখ্যমন্ত্রী ঘোষণা করেছেন সরকারি অফিসে উপস্থিতির হার বাড়ালেও বেসরকারি অফিসে ওয়ার্ক ফ্রম হোমের কথা বলেছেন। বাস চলছে রাস্তায় ঠিকই কিন্তু সংখ্যায় খুবই কম আর তাতে যা অবস্থা হচ্ছে সামাজিক দুরত্ব বলতে কিছুই মানা হচ্ছে না। এই অবস্থায় অনেকেই জীবনের ঝুঁকি নিতে রাজি না হতে কাজেই যাচ্ছে না।

তবে উপায়, অসহায় মানুষের পাশে তাই ফের নতুন করে রাজপুর সোনারপুর পৌরসভার ১ নং ওয়ার্ডের পৌরমাতা পাপিয়া হালদারের উদ্যোগে আজ তাঁর নিজস্ব কার্যালয়ের থেকে ২০০ জনকে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করলেন। এই খাদ্য সামগ্রী বিতরণের সময় সামাজিক দুরত্ব বজায় রেখে বিতরণ করা হল। মূলত এই ওয়ার্ডে পিছিয়ে থাকা অঞ্চল আছে যেখানে মানুষ খুবই দুর্দশার মধ্যে রয়েছে, একে করোনা তাঁর ওপর আমফান। দুটো বড় দুর্যোগে মানুষের অবস্থা খুবিই খারাপ। তাই তাদের পাশে এই মুহুর্তে দাঁড়ানোটা পৌরমাতা পাপিয়া মনে করেন একটা সামাজিক দায়বদ্ধতা। সেই দায়বদ্ধতা থেকেই আজ তিনি এই খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করেছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *