You cannot copy content of this page. This is the right with takmaa only

রাশিয়া ও ব্রাজিলকে টপকে দ্বিতীয় স্থানে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর স্বচ্ছ ভারত, অসহায় মানুষ আরও অসহায়

অম্বর ভট্টাচার্য, এবিপিতকমা, কলকাতা, ১১ই জুন ২০২০ : করোনাকে নিয়ে যতই মোকাবিলা করা হোক কিন্তু তাতে কিন্তু ভারত পিছু হটছে না। যতই লকডাউন হোক আর আনলক হোক আক্রান্তের হার কোনভাবেই কমবে না, এটাই হল ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র দামোদর মোদীর সর্বশেষ স্ট্র্যাটেজি।প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর বড় সাধের ভারত এখন এগিয়ে চলেছে প্রথম স্থানের দিকে।আজ ২৪ ঘন্টায় গোটা বিশ্বে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৮৭,৭৩৫। গোটা বিশ্বে আজ পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছেন ৭৬,৭২,৪৩৪ যার মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ৪,২৬,০৬১ এবং সুস্থ হয়েছেন ৩৮,৮৬,৬০০। যদিও সুস্থ্য হওয়ার হার অনেক বেশি কিন্তু সেটা একটা শ্রেনীর দেশের জন্য প্রযোজ্য।ভারতে সেরকম পরিকাঠামো নেই যে মানুষকে চিকিৎসা করে সুস্থ্য করবে। যেখানে সরকার নিজের ভান্ডার ভড়তে ব্যস্ত, যেখানে তাদের সময় নেই মানুষের নিরাপত্তা বা সুস্থ্যতা দেখার। তাঁরা এই পরিস্থিতিতে রাজনৈতিক প্রচার ও সভা করতে ব্যস্ত।সাম্প্রতিক বিজেপি ভার্চুয়াল সভা করলেন বাংলার মানুষের সাথে। কিন্তু কেন?

আজ ১২ই জুন ভারত করোনা আক্রান্তের দিক থেকে রাশিয়া ও ব্রাজিলকে টপকে ঠিক আমেরিকার পিছনেই আছে। আজ আমেরিকায় আক্রান্ত হয়েছে ১২১৬০ এবং ভারতে ১১,১০৬ জন। তৃতীয় স্থানে রাশিয়া। যদিও মৃত্যুতে আজ মেক্সিকো প্রথম, তাদের মারা গেছে ৫৮৭ জন এরপর ভারত যেখানে মারা গেছে ৩৮৯ এবং আমেরিকায় মারা গেছে ৩৮৫। অনেক বিশেষজ্ঞ অনেক আগে থেকেই বলেছেন জুন ও জুলাই মাসটা ভারতের জন্য খুবই মারাত্মক। এই দুই মাসে আক্রান্তের হার প্রচন্ড বাড়বে যে নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে যাবে আর ঠিক সেই সময় কেন্দ্রীয় সরকার আনলক ঘোষণা করলেন। এখানেই বোঝা যায় কেন্দ্রীয় সরকারের মানসিকতা কতটা মানবিক।বহু বিশেষজ্ঞকে বলতে শোনা যাচ্ছে করোনার জন্য টীকা আবিষ্কার প্রায় হয়েই গেছে। কেউ বলছে হোমিওপ্যাথি চিকিৎসায় করোনা নিরাময় করা যাচ্ছে আবার আয়ুর্বেদ চিকিৎসা দাবি করছে তাদের চিকিৎসায় করোনা দমন করা সম্ভব। সব শেষে তো বিজেপি নেতারা গো-মূত্র এই সুযোগে বিক্রি করতে শুরু করে দিলেন করোনার জীবাণুনাশক বলে। এক কথায় যে যার মত এই সুযোগে কিছুটা কামিয়ে নিতে মাঠে নেমে পড়েছে। সত্যিই কথাটা কোন অংশে ভুল ছিল না “সেলুকাস, বিচিত্র এই দেশ”।এভাবেই এগিয়ে চলুক ভারত একসময় ঠিক শ্রেষ্ঠ আসন দখল করতে সক্ষম হবেই ভারত আর রাজনৈতিক নেতারা তার ফয়দা তুলবে। মোদী বলবেন “মেরা ভারত মহান”, মমতা বলবেন “এগিয়ে বাংলা”।মাঝখান থেকে প্রাণে মারা পড়বেন নিরীহ অসহায় মানুষগুলো।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *