You cannot copy content of this page. This is the right with takmaa only

সর্বভারতীয় তৃণমূল কংগ্রেস, রাজ্যের মন্ত্রী বীরবাহা হাঁসদার বিরুদ্ধে উপজাতি-বিরোধী মন্তব্যের জন্য শুভেন্দু অধিকারীকে তীব্র আক্রমণ শানিয়েছে

অম্বর ভট্টাচার্য, তকমা নিউজ, কলকাতা, ১৬ই নভেম্বর ২০২২ : সর্বভারতীয় তৃণমূল কংগ্রেস সোমবার বিজেপি নেতা শুভেন্দু অধিকারীকে উপজাতী নেতা এবং রাজ্য মন্ত্রী বীরবাহা হাঁসদার বিরুদ্ধে উপজাতি বিরোধী এবং অবমাননাকর মন্তব্যের জন্য চরম নিন্দা করেছে। একটি ভিডিওতে আমরা দেখতে পেয়েছি শুভেন্দু অধিকারী বীরবাহা হাঁসদা এবং তাঁর জনগোষ্ঠীদের উদ্দেশ্য করে বলেছেন যে “তারা কেবল তার পায়ের নীচে থাকার যোগ্য।”

সর্বভারতীয় তৃণমূল কংগ্রেস টুইট করে জানিয়েছে যে, “Belittling women & the ST community comes as second nature to @SuvenduWB. He has used the most unparliamentary language for MLA @Birbaha_Hansda, who is a daughter of the soil, a proud Adivasi. Any sermon on respect for women from @BJP4India leaders is a cruel joke,”

বীরবাহা হাঁসদা বলেছেন যে, এটি একটি খুবই “দুঃখজনক” ঘটনা, কিন্তু শুভেন্দু অধিকারীর করা তাঁর এবং দেবনাথ হাঁসদার বিরুদ্ধে আপত্তিকর মন্তব্যের জন্য কেউ প্রতিবাদ করেনি। ঝাড়গ্রামের বিধায়ক প্রশ্ন তোলেন যে, “আমরাও আদিবাসী। আমি একজন সাঁওতাল মহিলা। আমি এখনও সারি ধর্ম পালন করি। কিন্তু সেদিন কোনো প্রতিবাদ দেখিনি। বিজেপি সর্বদা আদিবাসীদের ভোটব্যাঙ্ক হিসেবে ব্যবহার করেছে কারণ তারা আদিবাসী বিরোধী দল। আপনি কি শুভেন্দু অধিকারীর পদত্যাগ চেয়েছেন?” তিনি আরও বলেন, “আমি আশা করি আগামী দিনে আপনি শুভেন্দু অধিকারীর পদত্যাগ চাইবেন কারণ তিনি আমার এবং দেবনাথ হাঁসদার মতো একজন আদিবাসীকে অপমান করেছেন।”

গতকাল ভাইরাল হওয়া ভিডিওতে, শুভেন্দু অধিকারীকে বীরবাহা হাঁসদার বিরুদ্ধে একটি অবমাননাকর মন্তব্য করতে শোনা যায় তাকে। তিনি বলেছেন, ‘ওরা আমার জুতোর তলায় থাকবে।’

সোমবার এক সাংবাদিক সম্মেলনে সম্মেলনে পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেছেন, আদিবাসী মন্ত্রী বীরবাহা হাঁসদার বিরুদ্ধে বিরোধী নেতাদের মন্তব্য অবমাননাকর। মুখ্যমন্ত্রী বলেন, “বীরবাহা হাঁসদা একজন আদিবাসী মহিলা, যিনি সাংস্কৃতিক পরিবার একজন। যদি কেউ বলে যে বীরবাহা হাঁসদা তার পায়ের তলায় থাকবে, তাহলে আমার ভীষন লজ্জা লাগে। আমাদের রাজ্যের একজন মন্ত্রী এবং একজন উপজাতী নারীর সম্বন্ধে কীভাবে এইসব কথা বলি? এটি সর্বদা নিন্দনীয়।”

সর্বভারতীয় তৃণমূল কংগ্রেসের মুখপাত্র কুণাল ঘোষ বলেছেন, “হাঁসদা আমাদের বিশিষ্ট আদিবাসী নেতাদের একজন এবং রাজ্য বিধানসভায় তিনি তাঁর সম্প্রদায়ের প্রতিনিধিত্ব করেন৷ একজন জনপ্রতিনিধি [শুভেন্দু অধিকারী] এতটা যে নিম্নরুচির হতে পারে তা আশ্চর্যজনক নয়। কিন্তু এরমধ্যে দিয়ে তার উপজাতি বিরোধী মানসিকতার পরিচয় পাওয়া যায়।

শুভেন্দু অধিকারীর “অভিষেক-ফোবিয়া”এর জন্য তিনি সর্বভারতীয় তৃণমূল কংগ্রেসের জাতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে তিন বছর বয়সী শিশুর নোংরা রাজনীতিকে এক করে দিয়েছিল। তার জন্য সোমবার সর্বভারতীয় তৃণমূল কংগ্রেসের যুব ও ছাত্র পরিষদ শাখা একটি “Get Well Soon” প্রচার শুরু করেছে বাংলার বিজেপি নেতা শুভেন্দু অধিকারীকে নিয়ে।

দলীয় কর্মীরা শুভেন্দু অধিকারীর মানসিক স্বাস্থ্যের জন্য শুভকামনা করেন এবং অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় একটি ছবি-সহ তাকে ফুল, শুভেচ্ছা কার্ড এবং একটি ‘শীঘ্রই সুস্থ হন’ বার্তা পাঠাতে শুরু করেন। কুণাল ঘোষ রবিবার বলেছেন, “তার মানসিক সুস্থতা যদি ঠিক না থাকে, তাহলে সে কীভাবে আমাদের সঙ্গে লড়াই করবে? তিনি কীভাবে লড়বেন দিলীপ ঘোষ বা সুকান্ত মজুমদারের সঙ্গে? আমরা শুধু চাই সে দ্রুত সুস্থ হয়ে উঠুক এবং এই কারণেই আমরা এই প্রচার শুরু করেছি।”

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *